1. km.mintu.savar@gmail.com : admin :
  2. coderbruh@protonmail.com : demilation :
  3. editor@biplobiderbarta.com : editor :
  4. same@wpsupportte.com : same :
শিরোনাম:
হারকিউলিস তোমাকে দেখিনা কোথাও সাঁথিয়ার পাইকরহাটী শহীদনগর উচ্চ বিদ্যালয়ে বাংলাদেশ উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে এসএসসি প্রোগ্রাম চালু হচ্ছে | সিরাজগঞ্জের মিতা’র উদ্যোক্তা হয়ে ওঠার গল্প বাংলাদেশ মাইম এসোসিয়েশন কর্তৃক আয়োজিত ঢাকার জিগাতলা ফাতেমা ল কলেজে মূকাভিনয় কর্মশালা অনুষ্ঠিত পাবনা ঈশ্বরদীর কৃতি সন্তান চিকিৎসক ডা. রায়ান সাদী নোবেল পুরস্কারের জন্য মনোনীত || উদ্বোধন হলো পণ্যের আলো ই-কমার্স ওয়েভসাইট বিশ্ববাজারে ধারাবাহিকভাবে পড়ছে অপরিশোধিত তেলের দর দলীয় সরকারের অধীনে সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব নয়: মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম ইজিবাইক নিয়ে যেসব প্রশ্ন করে না গণমাধ্যম প্রয়োজন শুধু আত্মবিশ্বাস

বকেয়া বেতন ও কারখানা খোলার দাবিতে আশুলিয়ায় শ্রমিকদের বিক্ষোভ

বিপ্লবীদের বার্তা রিপোর্ট :
  • প্রকাশ : মঙ্গলবার, ৫ মে, ২০২০
  • ৬৭৬ বার পড়া হয়েছে

ঢাকার আশুলিয়ায় একটি পোশাক কারখানার শ্রমিকেরা বকেয়া বেতন ও কারখানা খুলে দেওয়ার দাবিতে আজ মঙ্গলবার সকালে বিক্ষোভ করেছেন। দুই মাস ধরে বেতন পচ্ছেন না বলে অভিযোগ করেছেন শ্রমিকেরা।

পুলিশ ও শ্রমিকদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, নরসিংহপুর এলাকার আদিয়াত অ্যাপারেলস লিমিটেডের তিন শতাধিক শ্রমিক গত মার্চ মাস থেকে বেতন পাচ্ছেন না। শ্রমিকদের বেতন পরিশোধ না করে গত ২৮ মার্চ কারখানাটি বন্ধ করে দেওয়া হয়। এরপর শ্রমিকেরা বেতনের জন্য বিচ্ছিন্নভাবে কারখানায় গিয়েছেন। কিন্তু কারখানা বন্ধ থাকায় তাঁরা কারও সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারেননি। আজ মঙ্গলবার সকালে শ্রমিকেরা একজোট হয়ে কারখানায় যান। এরপর তাঁরা কারখানার ফটকের ভেতরে অবস্থান নেন। এ সময় তাঁরা বকেয়া বেতন প্রদানসহ কারখানা খোলার দাবিতে বিক্ষোভ করেন।

কয়েকজন শ্রমিক বলেন, অধিকাংশ শ্রমিককেই মার্চ মাসের বেতন দেওয়া হয়নি। এ ছাড়া এপ্রিল মাসের বেতনও বকেয়া রয়েছে। এই অবস্থায় তাঁদের না জানিয়ে কারখানা বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। এরপর থেকে মালিকদের কেউ তাঁদের খবর নেননি। বকেয়া বেতনের জন্য তাঁরা কোথায় যাবেন, কার সঙ্গে কথা বলবেন, ঠিক বুঝে উঠতে পারছিলেন না। নিরুপায় হয়ে তাঁরা বিক্ষোভের পথ বেছে নেন।

গার্মেন্টস শ্রমিক ট্রেড ইউনিয়ন কেন্দ্রের কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক খায়রুল মামুন বলেন, ‘কাজ করে শ্রমিকেরা বেতন পাবেন না, নিয়ম না মেনে ছাঁটাই করা হবে। সব মিলিয়ে শ্রমিকদের নিয়ে পোশাক কারখানার মালিকেরা যা করছেন, তা কোনো সভ্য সমাজে হতে পারে কি না, তা আমি মনে করি না।’

শিল্প পুলিশের এক কর্মকর্তা বলেন, মালিকপক্ষের সঙ্গে কথা হয়েছে। ১০ মে তারা বেতন পরিশোধের বিষয়ে সিদ্ধান্ত জানাবে।

শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরো খবর

আমাদের পেজ