1. km.mintu.savar@gmail.com : admin :
  2. editor@biplobiderbarta.com : editor :
শিরোনাম:
দেশে করোনায় মৃত্যু বাড়ল, ৫১ জনের মৃত্যু, শনাক্ত হয়েছে এক হাজার ৯০১ জন। দেশে আগস্টের চেয়ে সেপ্টেম্বরে ডেঙ্গু রোগী বাড়ছে পোশাক রপ্তানিতে ভিয়েতনামের চেয়ে আবার এগিয়ে বাংলাদেশ প্রণোদনা ঋণ ৩৬ কিস্তিতে পরিশোধের সুবিধা চায় বিজিএমইএ পোশাক খাতের ১৬ শতাংশ শ্রমিকের কম মজুরি পাওয়ার শঙ্কায় হাসেম ফুড কারখানায় অগ্নিকাণ্ডে মালিকসহ দায়ীদের শাস্তি ও ক্ষতিপূরণের দাবি শ্রমিকদের ন্যূনতম মজুরী ২১ হাজার টাকা নির্ধারণসহ দশ দফা দাবীতে সাংবাদিক সম্মেলন শক্তি ফাউন্ডেশনের উদ্দ্যোগে পাবনা- কাশিনাথপুরে করোনা সচেতনতায়  মাস্ক বিতরণ: হাসেম ফুড কারখানায় আরও একটি খুলিসহ কঙ্কাল ও হাড় উদ্ধার গার্মেন্ট শ্রমিকদের সুরক্ষায় ৫০ ইউনিয়নের যৌথ বিবৃতি

মেয়েটিকে একাধিকবার ধর্ষণ করেছে মহাজন, টাকা নিয়ে তা শোধ না করতে পারায় নিজের কিশোরী মেয়েকে তার হাতে তুলে দেওয়ার অভিযোগ

বিপ্লবীদের বার্তা রিপোর্ট :
  • প্রকাশ : বুধবার, ১৫ জানুয়ারী, ২০২০
  • ৩৯৪ বার পড়া হয়েছে

রাজধানীর কামরাঙ্গীরচর এলাকায় এক ব্যক্তি মহাজনের কাছ থেকে টাকা নিয়ে তা শোধ না করতে পারায় নিজের কিশোরী মেয়েকে তার হাতে তুলে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। মহাজন মেয়েটিকে একাধিকবার ধর্ষণ করেছে। ধর্ষণের শিকার কিশোরীকে মঙ্গলবার রাতে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে (ওসিসি) ভর্তি করা হয়েছে।

ওই বাবা একাধিকবার তার কিশোরী মেয়েকে মহাজনের হাতে তুলে দিয়েছে বলে অভিযোগ পেয়েছে পুলিশ। এই ব্যক্তিকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

পুলিশ জানিয়েছে, ভিকটিম তার বাবার সঙ্গে কামরাঙ্গীরচর এলাকায় থাকে। ওই লোক এক মুরগি ব্যবসায়ী মহাজনের দোকানে চাকরি করতো, পাশাপাশি ভ্যান চালাতো। সে মহাজনের কাছ থেকে টাকা নিয়েছিল, কিন্তু শোধ করতে পারেনি। এরপর সে মহাজনের হাতে তার কিশোরী মেয়েকে তুলে দেয়। মেয়েটিকে একাধিকবার মহাজনের হাতে তুলে দিয়েছে সে। কখনও কখনও ঘুমের ওষুধ খাইয়ে ওই মহাজনের কাছে দেওয়া হতো মেয়েটিকে। গত ১১ জানুয়ারি সর্বশেষ কিশোরী ধর্ষণের শিকার হলে এক প্রতিবেশীকে সে ঘটনাটি জানায়। ওই প্রতিবেশী পুলিশকে জানায়। এরপর পুলিশ মেয়েটিকে উদ্ধার করে ও তার বাবাকে গ্রেফতার করে। মঙ্গলবার রাতেই ওই কিশোরীকে ঢামেক ওসিসিতে এনে ভর্তি করা হয়।

কামরাঙ্গীরচর থানার ওসি এ বি এম মশিউর রহমান বলেন, ‘মেয়েকে নিয়ে কামরাঙ্গীরচর ভাড়া বাসায় থাকতো ওই ভ্যানচালক। তার স্ত্রী বিদেশে। ২০১৯ সালে মুরগি ব্যবসায়ী মহাজনের কাছ থেকে টাকা নিয়েছিল সে। এরপর থেকে টাকা না দিতে পারায় কিশোরী মেয়েকে চেয়েছিল মহাজন। এরপর থেকে বারবার ধর্ষণের শিকার হচ্ছিল মেয়েটি।’

এই ঘটনায় কামরাঙ্গীরচর থানায় একটি মামলা হয়েছে। কিশোরী তার বাবার সঙ্গে যে বাসায় ভাড়া থাকতো সেই বাড়ির মালিক বাদী হয়ে এই মামলা করেছেন। মামলায় বাবা ও মহাজনকে আসামি করা হয়েছে। পুলিশ ওই বাবাকে মঙ্গলবার রাতেই গ্রেফতার করেছে। তবে মুরগি ব্যবসায়ী মহাজন পলাতক।

শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরো খবর

আমাদের পেজ